বাংলাদেশে অনলাইনে কৃষকের ঋণ পাওয়া কতটা সহজ হবে?

বৈচিত্র ডেস্ক : অনলাইনের মাধ্যমে কৃষকদের ঋণ সুবিধা পাওয়ার এক উদ্যোগ উদ্বোধন করতে যাচ্ছে আজ বাংলাদেশ ব্যাংক।

এর ফলে দেশের কৃষকরা বিভিন্ন স্থান থেকে অনলাইনের মাধ্যমে বিভিন্ন লোন নেয়ার জন্য আবেদন করতে পারবে।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যলয়ের এটুআই প্রোগ্রাম- এর প্রযুক্তিগত সুবিধা দেবে।

সরকারি, বেসরকারি বিভিন্ন ব্যাংকের প্রধানদের নিয়ে আজ বৈঠক হবে বাংলাদেশ ব্যাংকে।

বাংলাদেশে কৃষকদের লোন পাওয়ার ক্ষেত্রে নানা ভোগান্তির শিকারের অভিযোগ ওঠে। সেখানে এই ব্যবস্থা তাদের সেই ভোগান্তি কতটা কমাবে?

এই প্রকল্পের সাথে কাজ করছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের একজন যুগ্ম পরিচালক শহীদ রেজা বলছিলেন,এর মূল উদ্দেশ্য কৃষকের হয়রানি কমানো।

তিনি বলছিলেন, “দেখা যায় কৃষি ঋণ পেতে একজন কৃষককে একটা ব্যাংকের শাখায় কোন কোন সময় পাঁচ-ছয় বার যেতে হয়। কিন্তু আমাদের এই নতুন ব্যবস্থায় কৃষক সংশ্লিষ্ট ব্যাংকের শাখায় একবারেই যেতে হবে। তিনি ঘরে বসেই সব তথ্য দিতে পারবেন, নিজের প্রোফাইল তৈরি করতে পারবেন।”

কার্যক্রমটি শুরু হবে মোবাইল অ্যাপ ভিত্তিক এবং ওয়েবপেজ ভিত্তিক।

ইতিমধ্যে কৃষি লোন নামে একটা মোবাইল অ্যাপলিকেশন তৈরি করা হয়েছে। যেটা গুগল প্লে স্টোর থেকে যে কেউ ব্যবহার করতে পারেন।

তিনি বলেন, “যারা অ্যান্ড্রয়েড ফোন ব্যবহার করছেন না তাদের জন্য ওয়েবপেজ রয়েছে অনলাইনকৃষি.কম.বিডি নামে। এখানে গিয়ে যে কেউ তার প্রোফাইল যোগ করে কৃষি ঋণের জন্য আবেদন করতে পারবেন।”

প্রথম পর্যায়ে চট্টগ্রাম জোনের ব্যাংকগুলোতে পাইলটিং এর ম্যাধ্যমে শুরু করা হবে।

তারপর এর সফলতার ভিত্তিতে সারা দেশে এই কার্যক্রম শুরু করা হবে বলে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

কৃষি লোন পেতে কৃষকেরা যে হয়রানির শিকার হন সেটা স্বীকার করেন এই কর্মকর্তা।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে নিরন্তর চেষ্টা করা হচ্ছে যাতে করে কৃষকরা সহজেই কৃষি ঋণ পেয়ে যান।

তবে প্রযুক্তিগত কিছু জটিলতা মোকাবেলা করতে হবে এই উদ্যোগকে সামনে এগিয়ে নিয়ে যেতে।

মি. রেজা বলছিলেন “যেসব কৃষক অ্যান্ড্রয়েড ফোন ব্যবহার করছেন না তাদের জন্য ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টার যেটা আছে সেখান থেকে তারা সহায়তা নিতে পারবেন।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *