মুক্তি পেলেন নওয়াজ, মরিয়ম, সফদার

বৈচিত্র ডেস্ক : পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের স্ত্রী কুলসুম নওয়াজ মঙ্গলবার লন্ডনে চিকিৎসারত অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছেন। তার শেষকৃত্যে যোগ দিতে প্যারোলে মুক্তি পেয়েছেন কারাবন্দী নওয়াজ শরিফ, তার কন্যা মরিয়ম নওয়াজ ও জামাতা ক্যাপ্টেন (অব.) সফদার।
রাওয়ালপিন্ডির আদিয়ালা কারাগার থেকে মুক্তি পাওয়ার পর আজ বুধবার সকালের দিকে লাহোরে পৌঁছেছেন তারা। প্যারোলে ১২ ঘণ্টার জন্য মুক্তি দেওয়া হয়েছে তাদের।
বহুদিন ধরে ক্যান্সারে ভোগার পর মঙ্গলবার ৬৮ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেন কুলসুম। তার মৃতদেহ লন্ডন থেকে পাকিস্তানে নিয়ে আসা হবে। লাহোরের শরিফ পরিবারের বাসবভন জাতি উমরায় তাকে দাফন করা হবে।
নওয়াজ, মরিয়ম ও সফদারকে রাওয়ালপিন্ডির নুর খান বিমান ঘাঁটি থেকে একটি বিশেষ বিমানে করে জাতি উমরায় নিয়ে যাওয়া হয়। তারা স্থানীয় সময় বুধবার রাত ৩.১৫ মিনিটে লাহোরে পৌঁছায়।
উল্লেখ্য নওয়াজ,  মরিয়ম ও সফদারকে গত জুলাই মাসে দুর্নীতির মামলায় গ্রেফতার করা হয়। তখন থেকে তারা কারাবন্দী হিসেবে জীবন যাপন করছেন।
পাকিস্তান মুসলিম লীগ-নওয়াজের (পিএমএল-এন) মরিয়ম আওরঙ্গজেব বলেন, শাহবাজ শরিফ পাঞ্জাব সরকারের কাছে তার বড় ভাই নওয়াজ, ভাতিজি মরিয়ম ও সফদারকে পাঁচ দিনের প্যারোলে মুক্তি দেওয়ার আহবান জানান। যাতে করে তারা বেগম কুলসুম নওয়াজের শেষকৃত্যে অংশ নিতে পারে।
তিনি আরো জানান, পাঞ্জার সরকার তার পাঁচদিনের মুক্তির আবেদন প্রত্যাখ্যান করেছে ও মাত্র ১২ ঘণ্টার জন্য প্যারোলে মুক্তি দেওয়া হয়েছে।
তিনি আরো জানান, কুলসুমের শেষকৃত্য শুক্রবার অনুষ্ঠিত হবে। বলেন,  আমরা আশাবাদী যে সরকার প্যারোলের সময়সীমা শুক্রবার পর্যন্ত বৃদ্ধি করবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *