স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট নাইন এখন বাজারে

বৈচিত্র ডেস্ক : প্রতিক্ষার সমাপ্তি ঘটিয়ে বিভিন্ন অফারের সমন্বয়ে নোট সিরিজের সর্বশেষ সংস্করণ গ্যালাক্সি নোট নাইনের বাজারজত শুরু করেছে স্যামসাং।

ডিভাইসটির জন্য প্রি-অর্ডার ও প্রত্যাশিত আকর্ষনীয় অফার প্রযুক্তিপ্রেমীদের ব্যাপকভাবে নজর কেড়েছে।

আগ্রহী ক্রেতারা এখন থেকে শক্তিশালী নোট নাইন বান্ডেল অফারের সঙ্গে ক্রয় করতে পারবেন।

মিডনাইট ব্ল্যাব, ওশেন ব্লু এবং মেটালিক কপার রং-এ ফ্ল্যাগশিপ এ ডিভাইসটি দেশের বাজারে মাত্র ৯৪,৯০০ টাকায় ক্রয় করা যাবে।

উল্লেখ্য, ফোনটি ক্রয়ে নির্দিষ্ট ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে ১২ মাসের ইএমআই বা কিস্তিতে ক্রয়ের সুযোগও রয়েছে।

এছাড়া ইবিএল ক্রেডিট কার্ডধারীরা ১২ মাসের ইএমআই বা কিস্তি সুবিধায় নোট নাইন ক্রয়ের ক্ষেত্রে নির্দিষ্ট কিছু রিটেইল আউটলেট থেকে বিনামূল্যে স্যামসাং-এর অরিজিনাল কভার পাবেন।

নোট নাইন ক্রয়ের সময় ‘নেভার মাইন্ড’ অফারের আওতায় বাড়তি ১০০০ টাকা পরিশোধ করে ক্রেতারা একবার স্ত্রিণ রিপ্লেসমেন্ট অফার গ্রহণ করতে পারবেন। এক্সচেঞ্জ অফারের মাধ্যমে গ্যালাক্সি নোট নাইন ক্রয়ের অফারও রেখেছে স্যামসাং।

গ্যালাক্সি নোট নাইন ক্রয়ের ক্ষেত্রে বিক্রয় পরবর্তী সেবার অংশ হিসেবে ফ্রি পিক অ্যান্ড ড্রপের অফার উপভোগ করতে পারবেন ক্রেতারা।

অনলাইনে নোট নাইন ক্রয় করতে চাইলে পিকাবু ডটকম থেকে ক্রয় করতে পারবেন এবং উক্ত সাইটে ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে পেমেন্ট করলে ৫০০০ টাকা ডিসকাউন্ট উপভোগ করা যাবে। এছাড়া জিপি সিম ব্যবহারকারীরা ৭ দিন মেয়াদী ৯ জিবি ইন্টারনেট অফার গ্রহণ করতে পারবেন।

জিপি শপ কিংবা গ্রামীণফোন সেন্টার থেকে বাড়তি মাত্র ৯৯ টাকায় ৭ দিন মেয়াদী ৪ জিবি ইন্টারনেট বান্ডেল অফারসহ গ্যালাক্সি নোট নাইন ক্রয় করতে পারবেন আগ্রহী ক্রেতারা।

ক্রয়ের পরবর্তী তিন মাস যাবৎ সর্বোচ্চ ৬বার এ বান্ডেল অফার ক্রয় করা যাবে।

রবি গ্রাহকরা নোট নাইন ক্রয় করলে পাবেন ৩০ দিন মেয়াদী ৪ জিবি ইন্টারনেট। এর মধ্যে ২ জিবি যেকোনো নেটওয়ার্কে এবং ২ জিবি ফোরজি নেটওয়ার্কে ব্যবহার করা যাবে।

রবি সিমসহ নোট নাইন ক্রয়ের ক্ষেত্রে ১০০ টাকা বা এর বেশি মাপের ডাটা প্যাক ক্রয় করলে ১০০% বোনাস পাওয়ার সুযোগ পাওয়া যাবে এবং এ ডাবল ইন্টারনেট অফারটি ৬ মাস উপভোগ করা যাবে।

নোট নাইনের সবচেয়ে আকর্ষনীয় ফিচার হচ্ছে এর এস পেন। আগের চেয়ে আরো বেশি কার্যকরভাবে তৈরি করা হয়েছে এবারের এস পেনটি।

নোট নেয়ার কাজ থেকে শুরু করে ছবি তোলা, পাওয়ার পয়েন্ট স্লাইড পরিবর্তন, ইউটিউব প্লেবেক পর্যন্ত নিয়ন্ত্রণ করা যায় এটি দিয়ে।

অন্যদিকে নোট নাইনের ক্যামেরা এ যাবৎকালের যেকোনো নোট সিরিজের ডিভাইসগুলো থেকে নিঃসন্দেহে সেরা। রেগুলার, পোর্ট্রটে, প্যানারোমা এবং স্লোমো ছবি তোলার ক্ষেত্রে নোট নাইনের ক্যামেরা অতুলনীয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *