মার্চ থেকে সেন্টমার্টিনে রাতযাপন নিষিদ্ধ

বৈচিত্র ডেস্ক : আগামী বছরের ১ মার্চ থেকে সেন্টমার্টিন দ্বীপে রাতযাপন নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

দ্বীপটিকে রক্ষায় এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে দিনের বেলায় পর্যটকদের যেতে দেয়া হবে।

গত ২৩ সেপ্টেম্বর সেন্টমার্টিন দ্বীপ রক্ষায় গঠিত আন্তঃমন্ত্রণালয় কমিটি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এর আগে ৯ সেপ্টেম্বর আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় সেন্টমার্টিন দ্বীপের জীববৈচিত্র্য ধ্বংসের চিত্র তুলে ধরে পরিবেশ অধিদফতর একটি প্রতিবেদন দেয়।

পরে ওই প্রতিবেদনের ভিত্তিতে কমিটি এসব সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

পরিবেশ অধিদফতরের প্রতিবেদনে বলা হয়, বর্তমানে প্রতিদিন ১০-২০ হাজার পর্যটক সেন্টমার্টিন দ্বীপে যান এবং অবস্থান করেন।

এতে দ্বীপটির জীববৈচিত্র্য ধ্বংসের পথে। শুধু তা–ই নয়, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতরসহ বিভিন্ন সংস্থা থেকে নির্মাণ করা রাস্তায় দ্বীপটির ক্ষতি বাড়ছে।

আন্তঃমন্ত্রণালয় কমিটির স্বল্পমেয়াদি সিদ্ধান্তে বলা হয়েছে, দ্বীপটিতে মোটরসাইকেল, গাড়ি ও স্পিডবোট চলাচল করতে পারবে না। দ্বীপটির ভাঙন রক্ষায় জিওব্যাগ ফেলা হচ্ছে। এতে তীরের মহামূল্যবান প্রবালের ক্ষতি হচ্ছে এবং ভাঙন বাড়ছে।

ওই ব্যাগ ফেলানো বন্ধ করতে বলেছে কমিটি। রাতে হোটেলগুলো বাতি জ্বালানোর ফলে কচ্ছপের প্রজনন ব্যাহত হচ্ছে। তাই রাতে দ্বীপে আলো জ্বালানো যাবে না।

এ ছাড়া দ্বীপের অন্যতম জীববৈচিত্র্যপূর্ণ এলাকা ছেঁড়া দ্বীপ ও গলাচিপা অংশে পর্যটকদের প্রবেশ সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ থাকবে।

আগামী ছয় মাস থেকে এক বছরের মধ্যে এসব সিদ্ধান্ত কার্যকর করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *