‘শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের সহায়তা পেলে প্রশ্ন ফাঁস রোধ সম্ভব’

বৈচিত্র ডেস্ক :  শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের সহায়তা পেলে প্রশ্ন ফাঁস রোধ করা সম্ভব বলে মনে করছেন নবনিযুক্ত শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। গত ১০ বছরে অনেক সাফল্য ও অর্জন রয়েছে জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, যেখানে যেখানে নতুন চ্যালেঞ্জ রয়েছে এবং সামনের দিকে যেসব চ্যালেঞ্জ আসবে সেগুলো মোকাবেলায় সকলের সহযোগিতা নিয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয় কাজ করবে।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে চাঁদপুর মেডিক্যাল কলেজের প্রথম বর্ষে ভর্তিকৃত এমবিবিএস কোর্সের শিক্ষার্থীদের পরিচিতিসভা অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন, ডা. দীপু মনি।

বিগত দিনে প্রশ্নপত্র ফাঁস হওয়া সম্পর্কে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি আরো বলেন, প্রশ্নপত্র ফাঁসের যত বেশি চাহিদা থাকে সেটি বের করার জন্য যারা অসদুপায় অবলম্বন করে তারা ফাঁক-ফোঁকর খুঁজে বের করার চেষ্টা করে। আমাদের দায়িত্ব, এটি যাতে কোনোভাবেই বের না হয় এবং এ ক্ষেত্রে শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা বিরাট ভূমিকা রাখতে পারেন।

যেকোনো মূল্যে প্রশ্ন ফাঁস বন্ধ করা এবং এ কাজে যারা অতীতে জড়িত ছিল এবং সামনে যদি চেষ্টা করে তাদেরকে আইনের আওতায় যথাযথ শাস্তির ব্যবস্থা করা হবে বলেও নিশ্চয়তা প্রদান করেন সরকারের এই নতুন শিক্ষামন্ত্রী।

চাঁদপুরে এই প্রথম চালু হওয়া সরকারি মেডিক্যাল কলেজের প্রথম বর্ষের কোর্সে ৫০ জন শিক্ষার্থী নিয়ে ক্লাস শুরু হলো। যেটি বর্তমানে আড়াই শ শয্যাবিশষ্টি চাঁদপুর জেনারেল হাসপাতালে অস্থায়ী ক্যাম্পাসে চলমান রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *