রাসেলকে ৫ লাখ টাকা দিয়ে সময় পেল গ্রিন লাইন পরিবহন

বৈচিত্র ডেস্ক : গ্রিন লাইনের বাস চাপায় পা হারানো রাসেল সরকারকে ৫০ লাখ টাকা দেওয়ার যে নির্দেশ দিয়েছিলেন হাইকোর্ট, তার মধ্যে ৫ লাখ টাকা দিয়েছে পরিবহনটির কর্তৃপক্ষ। বুধবার বিকালে আদালতের মাধ্যমে তাকে ৫ লাখ টাকার চেক দেওয়া হয়।

এরপর বাকি ৪৫ লাখ টাকা এক মাসের মধ্যে রাসেলকে বুঝিয়ে দিতে গ্রিন লাইনের মালিককে নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি এফ আর এম নাজমুল আহাসান ও বিচারপতি কে এম কামরুল কাদেরের হাইকোর্ট বেঞ্চ।

এর আগে রাসেলকে ৫০ লাখ দিতে বুধবার পর্যন্ত সময় বেঁধে দিয়েছিলেন হাইকোর্ট। সেই অনুযায়ী গ্রিন লাইন পরিবহনের মালিক হাজী মো. আলাউদ্দিনকে সঙ্গে নিয়ে এদিন আদালতে উপস্থিত হন কোম্পানির আইনজীবী অজি উল্লাহ।

রিটের পক্ষে আইনজীবী উম্মে কুলসুম বুধবার শুনানির শুরুতেই আদালতকে বলেন, গ্রিন লাইন কর্তৃপক্ষ কোনো ধরনের যোগাযোগই করেনি।

এসময় গ্রিন লাইনের আইনজীবী অজি উল্লাহ বলেন, হাজী আলাউদ্দিন অসুস্থ। তাছাড়া আরও কিছু জটিলতা আছে। টাকা দিতে তাদের এক মাস সময় প্রয়োজন।

জবাবে আদালত বলেন, উনি অসুস্থ, কিন্তু উনার ব্যবসা তো আর থেমে নেই, ব্যবসা তো চলছে। এছাড়া রাসেল পা হারিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলেন। আপনারা তো তার কোনো খোঁজ নিলেন না। এমনকি একটা টাকাও দিলেন না। রাসেলের একটা পা কেটে ফেলা হয়েছে। মানবতারও তো একটা ব্যাপার আছে।

শুনানি শেষে আদালত বলেন, কিছু টাকা দিয়ে বিকাল ৩টায় আসুন। পরে ৫ লাখ টাকার চেক নিয়ে রাসেল সরকারকে দেওয়া হয়। এরপর বাকি টাকা দিতে আদালত একমাস সময় বেঁধে দেন।

গত ৪ এপ্রিল আদালত বলেছিলেন, ১০ এপ্রিলের মধ্যে রাসেলকে ক্ষতিপূরণের টাকা দিতে হবে। নইলে পরদিন গ্রিন লাইন বাসের টিকিট বিক্রি বন্ধ করে দেওয়া হবে। টিকিট বিক্রি করে জনগণকে ভোগান্তির মধ্যে ফেলবেন না।

উল্লেখ্য, মেয়র মোহাম্মদ হানিফ ফ্লাইওভারে কথা কাটাকাটির জেরে একপর্যায়ে গ্রিন লাইন পরিবহনের বাস চালক ক্ষিপ্ত হয়ে প্রাইভেটকার চালক রাসেলের উপর দিয়ে বাস চালিয়ে দেন। এতে গুরুতর আহত হন তিনি। তার একটি পা কেটে ফেলা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *