গণসংযোগে হামলার অভিযোগ তাপসের

বৈচিত্র ডেস্ক:  ‘সম্প্রতির রাজনীতি’র সূচনা করতে চাওয়ার কয়েক ঘণ্টার পর প্রতিপক্ষ রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীরা তার গণসংযোগে ‘হামলা করেছে’ বলে অভিযোগ করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী শেখ ফজলে নুর তাপস।

রোববার রাজধানীর শান্তিনগর কাঁচাবাজার থেকে তৃতীয় দিনের মতো নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করার পূর্বে গণমাধ্যমের সামনে কথা বলতে গিয়ে তিনি এই অভিযোগ করেন।

গতকাল শনিবার দ্বিতীয় দিনে রাজধানীর আরকে মিশন রোডে নির্বাচনী প্রচারণার চালানোর সময়ে বিএনপির মনোনীত প্রার্থী ইশরাক হোসেনের বাসায় লিফলেট বিতরণ করতে গিয়ে শেখ ফজলে নুর তাপস বলেন, ‘এখন থেকে সম্প্রীতির রাজনীতি চলবে। সম্প্রতির রাজনীতির সূচনা করতে চান তিনি। দুপুরে তাপসের নির্বাচনী প্রচারণার পর বিকেলের দিকে এক কাউন্সিলর প্রার্থীর ওপর হামলার ঘটনা ঘটে।’

ওই প্রসঙ্গ তুলে শেখ ফজলে নুর তাপস বলেন, ‘আরকে মিশন রোডে নির্বাচনী প্রচারণার এক পর্যায়ে সেখানে আমাদের প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ইশরাক হোসেনের বাসায়ও আমি গিয়েছি। সেখানে সকলের সঙ্গে স্বাক্ষাৎ করেছি। ভোট প্রার্থনা করেছি।’

“কিন্তু দু:খের সঙ্গে বলতে হয়, আমরা সেখান থেকে চলে আসার পরই সন্ধ্যার দিকে তারা অতর্কিতভাবে আমাদের ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থীসহ গণসংযোগে যারা ছিলো তাদের ওপর আক্রমণ করেছে। এটা অত্যন্ত ন্যাক্কারজনক।”

তিনি বলেন, ‘আমরা চাই সম্প্রীতির রাজনীতি, পরিবর্তনের রাজনীতি। আমরা এই রাজনীতির সূচনা করতে চাই। আমরা আশা করবো সকলে আমার সাথে সেই সূচনায় অংশগ্রহণ করবে এবং আমরা একটা সুন্দর, সম্প্রীতির রাজনীতি ঢাকাবাসীকে উপহার দেব।’

তাবলীগ জামায়াতের সবচেয়ে বড় আয়োজন বিশ্ব ইজতেমার আখেরি মোনাজাতে দোয়া প্রার্থনা করার পর নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিচ্ছেন জানিয়ে শেখ তাপস বলেন, ‘আমরা জনগণের কাছ থেকে স্বতঃস্ফূর্ত সাড়া পাচ্ছি।’

 

“ঐতিহ্যের ঢাকা, সুন্দর ঢাকা, সচল ঢাকা, সুশাসিত ঢাকা এবং সর্বপরি উন্নত ঢাকা গড়ে তোলার যে পরিকল্পনা আমরা দিয়েছি ঢাকাবাসী সেটা সাদরে গ্রহণ করেছে। এজন্য স্বতঃস্ফূর্ত সাড়া পাচ্ছি। আমরা খুবই আশাবাদী যে ঢাকাবাসী আমাদের পক্ষে রায় দেবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘অত্যন্ত সুশৃঙ্খলভাবে নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেব। রাস্তায় যাতে কোনো প্রকার যানজট না হয়। আমরা প্রত্যেক ব্যক্তির সাথে যেন সংযোগ করতে পারি এজন্য আপনারা সহযোগিতা করবেন। আশা করি, জনগণ নৌকার পক্ষে রায় দেবে।’

এ সময় শান্তিনগর এলাকার ১৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিরর প্রার্থী পল্টন থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি এনামুল হক আবুল (ঘুড়ি মার্কা) এবং সংরক্ষিত মহিলা ওয়ার্ড কাউন্সিলর রোকসানা ইসলাস চামেলীকে (আনারস মার্কায়) পরিচয় করিয়ে দেন তাপস।

রোববার সারাদিনব্যাপী পল্টন, মালিবাগ, সেগুনবাগিচা, মতিঝিল, শাহজাহানপুর, সিদ্ধেশ্বরী, বেইলী রোডসহ ওই এলাকায় নির্বাচনী কার্যক্রম চালাবেন শেখ ফজলে নুর তাপস।

প্রচারণা চালানোর সময়ে রাস্তায় কোনো প্রকার প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি না হয় সেদিকে দৃষ্টি রাখতে নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান এই মেয়র প্রার্থী।

এর আগে শেখ ফজলে নুর তাপসকে কেন্দ্র করে ওই এলাকায় ব্যপকভাবে নেতাকর্মীদের উপস্থিতি ঘটে। নৌকার পক্ষে স্লোগানে স্লোগানে মুখরিত করে তোলে পুরো এলাকা।

পরে শেখ ফজলে নুর তাপস এলে তিনি নেতাকর্মীদের নিয়ে দোকানে দোকানে, গলিতে গলিতে ঢুকে লিফলেট বিতরণ করে নৌকার পক্ষে ভোট ও দোয়া চান। সংশ্লিষ্ট এলাকার জনগণও তাকে স্বাগত জানিয়ে ভোট দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন।

এ সময় প্রচারণায় আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

ঢাকা/পারভেজ/জেনিস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *